রোহিঙ্গা সমস্যার সমাধানে চীন-ভারত-রাশিয়ার ভূমিকা জরুরি- ইইউ রাষ্ট্রদূত

বরিশাল নিউজ ডেস্ক।। ঢাকায় ইউরোপীয় ইউনিয়নের (ইইউ) নবনিযুক্ত রাষ্ট্রদূত রেনসে টিরিংক বলেছেন, রোহিঙ্গা সংকট নিরসনে রাশিয়া, চীন ও ভারতের ভূমিকা গুরুত্বপূর্ণ। বিশেষ করে মিয়ানমারে চীনের বিপুল পরিমাণ বিনিয়োগ এবং বাণিজ্যিক স্বার্থের বিষয়টি এ সংকট সমাধানে যেকোন উদ্যেগের ক্ষেত্রে বড় প্রশ্ন হয়ে দেখা দিচ্ছে। রোহিঙ্গা সমস্যার সমাধানে চীন-ভারত-রাশিয়ার ভূমিকা জরুরি- ইইউ রাষ্ট্রদূত

বুধবার ঢাকার একটি হোটেলে কূটনৈতিক প্রতিবেদকদের সংগঠন ডিক্যাব আয়োজিত ‘ডিক্যাব টক’ অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন। রাষ্ট্রদূত বলেন, কফি আনান কমিশনের সুপারিশ বাস্তবায়ন এবং পালিয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নেওয়া রোহিঙ্গাদের মিয়ানমারে নিরাপদ ও মর্যাদাপূর্ণ প্রত্যাবাসনের মধ্য দিয়ে বর্তমান সংকটের স্থায়ী সমাধান আশা করে ইইউ।
নতুন রাষ্ট্রদূত জানান, বাংলাদেশে তার কূটনৈতিক মিশন অত্যন্ত আনন্দদায়ক। গত এক মাসে তিনি যে অভ্যর্থনা পেয়েছেন তা তাকে মুগ্ধ করেছে। এর আগে নেপালে এবং ভারতে দায়িত্ব পালনের কারণে বাংলাদেশ তার কাছে আগে থেকেই চেনা। তিনি কিছু কিছু বাংলাও শিখেছেন।
রাষ্ট্রদূত রেনসে টিরিংক জানান, এমন একটা মুহূর্তে তিনি বাংলাদেশে দায়িত্ব নিয়ে এসেছেন যখন মিয়ানমার থেকে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গাদের নিয়ে সৃষ্ট সংকট আন্তর্জাতিক অঙ্গনে ব্যাপক আলোচনার জন্ম দিয়েছে। বাংলাদেশ এই বিপন্ন বাস্তুচ্যুতদের জরুরি আশ্রয় ও মানবিক সহায়তা দিয়ে প্রশংসনীয় দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে। একইসঙ্গে স্বল্প সময়ের মধ্যে বিপুল সংখ্যক রোহিঙ্গার উপস্থিতি বাংলাদেশকে বড় চাপেও ফেলেছে। এ সংকট মোকাবেলায় ইইউ চায় কফি আনান কমিশনের সুপারিশ দ্রুত বাস্তবায়ন এবং রোহিঙ্গাদের মিয়ানমারে নিরাপদ প্রত্যাবাসন। সর্বশেষ ইইউ পররাষ্ট্র বিষয়ক কাউন্সিলের সভা থেকেও মিয়ানমারের প্রতি এ আহ্বান জানানো হয়েছে।
তিনি বলেন, কূটনৈতিক নিয়ম-কানুন অনুযায়ী অনেক বিষয়েই তার কথা বলার সীমাবদ্ধতা রয়েছে। তবে তিনি তার নিজস্ব দৃষ্টিভঙ্গী থেকে কিছু মতামত দিতে পারেন। এ দৃষ্টিকোন থেকেই সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, মিয়ানমার দীর্ঘদিন চোখের আড়ালে ছিল। যখন চোখের সামনে আসল তখন রাখাইনে নিষ্ঠুর অভিযান পরিচালনার বিষয়টি বিশ্বের নজরে এল। একইসঙ্গে দেখা গেল মিয়ানমারে চীনের বিপুল পরিমাণ বিনিয়োগ এবং ব্যবসায়িতক স্বার্থ রয়েছে। রাশিয়া এবং ভারতের সঙ্গেও মিয়ানমারের কৌশলগত কূটনৈতিক সম্পর্কের বিষয়টিও আলোচনায় এসেছে। এমন অবস্থায় রাখাইনের সংকট নিরসনে চীন, রাশিয়া এমনকি ভারতের ভূমিকা গুরত্বপূর্ণ। বিশেষ করে মিয়ানমারকে সংকট নিরসনে কার্যকর পদক্ষেপ নিতে বাধ্য করার জন্য চাপ দেওয়ার ক্ষেত্রে চীন, রাশিয়ার ভূমিকা গুরুত্বপূর্ণ হিসেবে সামনে চলে আসছে। চাপ দিতে হবে, কিন্তু কীভাবে সেটা সম্ভব হবে এটাই প্রশ্ন।
তিনি বলেন, সবচেয়ে ইতিবাচক দিক হচ্ছে রোহিঙ্গা সংকট এখন পুরো বিশ্বের নজরে রয়েছে। এ কারণে সংকট নিরসনে ইতিবাচক আন্তর্জাতিক উদ্যোগ আসতে পারে। তবে সংকটের সমাধান দীর্ঘমোয়দী হলে সেক্ষেত্রে আগামী ছয় মাস পর রোহিঙ্গাদের সহায়তার বিষয়-সহ নতুন অনেক প্রসঙ্গ চলে আসার আশংকা দেখা দিতে পারে।
রাষ্ট্রদূত টিরিংক জানান, আগামী ৩০ অক্টোবর ইইউ মানবিক সহায়তা ও দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা বিষয়ক কমিশনার (মিনিস্টার) বাংলাদেশ সফরে আসছেন। তিনি ৩১ অক্টোবর কক্সবাজারে রোহিঙ্গা শিবির পরিদর্শনে যাবেন। এরপর তিনি এ ব্যাপারে ইইউ’র অবস্থান তুলে ধরবেন।
অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব ও সঞ্চালনা করেন ডিক্যাব সভাপতি রেজাউল করিম লোটাস এবং স্বাগত বক্তব্য রাখেন সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক পান্থ রহমান।


এ বিভাগের আরো খবর...
ঝালকাঠিতে ঢাবি সিনেট নির্বাচনে প্রার্থী পরিচিতি সভা অনুষ্ঠিত ঝালকাঠিতে ঢাবি সিনেট নির্বাচনে প্রার্থী পরিচিতি সভা অনুষ্ঠিত
বানারীপাড়ায় আগুনে ৩ ব্যবসা প্রতিষ্ঠান পুড়ে ছাই বানারীপাড়ায় আগুনে ৩ ব্যবসা প্রতিষ্ঠান পুড়ে ছাই
‘সাংবাদিকদের সামাজিক দায়বদ্ধতা থাকতে হবে’ ‘সাংবাদিকদের সামাজিক দায়বদ্ধতা থাকতে হবে’
বানারীপাড়ায় রায়েরহাট ঝুঁকিপূর্ণ ব্রিজ বানারীপাড়ায় রায়েরহাট ঝুঁকিপূর্ণ ব্রিজ
বরিশাল নগরীতে ২০ কেন্দ্রে শিশুকে ক্যাপসুল খাওয়ানো হবে বরিশাল নগরীতে ২০ কেন্দ্রে শিশুকে ক্যাপসুল খাওয়ানো হবে
আগৈলঝাড়ায় সেমিনার ও প্রযুক্তি মেলা অনুষ্ঠিত আগৈলঝাড়ায় সেমিনার ও প্রযুক্তি মেলা অনুষ্ঠিত
সাকির হত্যাকান্ড মামলার অগ্রগতি নেই বলে অভিযোগ সাকির হত্যাকান্ড মামলার অগ্রগতি নেই বলে অভিযোগ
মরার আগে ঠিকানা পেতে চান জলেভাসা অজিত মরার আগে ঠিকানা পেতে চান জলেভাসা অজিত
কাঠালিয়ায় খালে গোসল করতে নেমে ২ গৃহবধুর মৃত্যু কাঠালিয়ায় খালে গোসল করতে নেমে ২ গৃহবধুর মৃত্যু
বরিশালে প্রাক বড়দিন উপলক্ষে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান বরিশালে প্রাক বড়দিন উপলক্ষে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান

রোহিঙ্গা সমস্যার সমাধানে চীন-ভারত-রাশিয়ার ভূমিকা জরুরি- ইইউ রাষ্ট্রদূত
(সংবাদটি ভালো লাগলে কিংবা গুরুত্ত্বপূর্ণ মনে হলে অন্যদের সাথে শেয়ার করুন।)
tweet


পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)