জেল সুপারের বিরুদ্ধে গুরুতর অভিযোগ !

বরিশাল নিউজ।। বরিশাল কেন্দ্রীয় কারাগারের সুপার ও দুই কারারক্ষীর বিরুদ্ধে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ এনেছেন কারারক্ষী সাম্মি আকতার । এডভোকেট আবুল কালাম আজাদ ইমনের মাধ্যমে বরিশালের নারী ও শিশু নির্যাতন দমণ ট্রাইব্যুনালে ১৩ নভেম্বর সোমবার এই অভিযোগ দাখিল করেন তিনি। আদালত সূত্র জানিয়েছে অভিযোগটি শুনানীর জন্য রেখে দেয়া হয়েছে ।
বরিশাল কেন্দ্রীয় কারাগার
অভিযুক্তরা হলেন বরিশাল কেন্দ্রীয় কারাগারের সুপার আজিজুল হক, কারারক্ষী নিজাম ও শেখ ফরিদ। অভিযুক্ত আজিজুল হক একই সাথে বরিশাল বিভাগের ভারপ্রাপ্ত কারা ডিআইজির দায়িত্ব পালন করছেন।
তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগে সাম্মি বলেন, নিজামের বাড়ি বরিশাল হওয়ার পরেও সুপারের সহায়তায় তিনি বরিশাল কারাগারে চাকুরী করেনে। কারা সুপারের স্ত্রী ঢাকায় চাকুরী করায় তিনি বরিশালের বাসায় একা থাকেন। সাম্মী ঢাকা থেকে বদলী হয়ে গত ১২ জানুয়ারি বরিশালে এসে সুপারের কাছে রিপোর্ট করে। আজিজুল ১৫ জানুয়ারি সাম্মিকে ঝালকাঠি জেলা কারাগারে পোষ্টিং দেয়। ১৯ ফেব্রুয়ারি তাকে প্রেষণে বরিশাল কারাগারে এনে কারা অভ্যন্তরে কোন দায়িত্ব না দিয়ে বন্দী সাক্ষাত স্লিপ কাটার দায়িত্ব দেন। সুপার প্রায়ই তাকে অফিসে ডেকে নিয়ে অসংলগ্ন কথাবার্তা বলেন। সাম্মি এড়িয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলে অন্যত্র বদলী ও চাকুরী হারাবার ভয় দেখিয়ে সরাসরি কুপ্রস্তাব দেয় এবং যৌন নিপীড়ন করে। লোকলজ্জা ও ইজ্জতের ভয়ে বিষয়টি আড়াল করার চেষ্টা করলেও সুপার আরো বেপরোয়া হয়ে ওঠেন। গত ১৮ অক্টোবর রাত ৯ টায় অভিযুক্ত নিজাম ও শেখ ফরিদ তার বাসায় এসে বন্দী সাক্ষাৎ স্লিপের হিসেব দেয়ার জন্য সুপার তাকে বাসায় ডাকে বলে জানায়। বাসায় যেতে রাজী না হলে নিজাম ও ফরিদ জোরাজুরি করে চাকুরীর ক্ষতি করার হুমকি দেয়। একপর্যায়ে সাম্মী অভিযুক্তদের সাথে কারাগারের পাশে সুপার আজিজুলের বাসায় যায়। নিজাম ও ফরিদ বাহিরে পাহারায় থাকে। আজিজুল তাকে জোড়পূর্বক ধর্ষণ চেষ্টা করে। ডাক চিৎকার দিলে অন্য কারারক্ষীরা ছুটে আসলেও উর্দ্ধতন কতৃপক্ষ হওয়ায় কেউ আজিজুলের বাসায় যেতে সাহস পায়নি। দুএকজন যাওয়ার চেষ্টা করলে নিজাম ও ফরিদের বাধা পেয়ে ফিরে যায়। সাম্মি ধস্তাধস্তি করে খাট থেকে নিচে পড়ে বুকে আঘাত পেয়েও দৌড়ে নিজের বাসায় চলে আসে। ২০ অক্টোবর শেবাচিম হাসপাতালে ভর্তি হয়ে চিকিৎসা নেয় সে। ধর্ষণে ব্যর্থ হয়ে কারা সুপার সাম্মিকে অন্যত্র বদলী ও চাকুরী খেয়ে দেয়ার হুমকি দেয়। একইসাথে জেলার বদরুদ্দোজাকে বাসভবন তালা মেরে রাখার নির্দেশ দেয়। জেলার সাম্মির বাসায় তালা মেরে রাখে। সাম্মি নিজ বাসায় যেতে পারছেনা।


এ বিভাগের আরো খবর...
ইতিহাসও প্রতিশোধ নেয় -প্রধানমন্ত্রী ইতিহাসও প্রতিশোধ নেয় -প্রধানমন্ত্রী
রাবির অপহৃত ছাত্রী ঢাকায় উদ্ধার রাবির অপহৃত ছাত্রী ঢাকায় উদ্ধার
শিশু অপরাধ বিকল্প পন্থায় সমাধানের পরামর্শ শিশু অপরাধ বিকল্প পন্থায় সমাধানের পরামর্শ
‘তাদের সাথে ভিআইপির মতো আচরণ করুন’ ‘তাদের সাথে ভিআইপির মতো আচরণ করুন’
ফৌজদারি ও দেওয়ানি নয়,শিশু আদালতে মামলা বেশী ! ফৌজদারি ও দেওয়ানি নয়,শিশু আদালতে মামলা বেশী !
জেএসসির শেষ দিনে বরিশালে অনুপস্থিত ৩৩৩০ জেএসসির শেষ দিনে বরিশালে অনুপস্থিত ৩৩৩০
ববি পদার্থবিজ্ঞান বিভাগের চ্যাম্পিয়ন’স ডে উদ্‌যাপন ববি পদার্থবিজ্ঞান বিভাগের চ্যাম্পিয়ন’স ডে উদ্‌যাপন
রাবির ছাত্রী অপহরণ রাবির ছাত্রী অপহরণ
সিলেটকে সাত উইকেটে হারাল রাজশাহী সিলেটকে সাত উইকেটে হারাল রাজশাহী
বরিশাল বিভাগে প্রাথমিকে ১৬৮ হাজার পরীক্ষার্থী বরিশাল বিভাগে প্রাথমিকে ১৬৮ হাজার পরীক্ষার্থী

জেল সুপারের বিরুদ্ধে গুরুতর অভিযোগ !
(সংবাদটি ভালো লাগলে কিংবা গুরুত্ত্বপূর্ণ মনে হলে অন্যদের সাথে শেয়ার করুন।)
tweet

পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)