ভোলায় ‘অনেক সাধের ময়না’

,

ষাটের দশকের সাড়া জাগানো রাজ্জাক-কবরীর ‘ময়নামতি’ ছবির রিমেক ‘অনেক সাধের ময়না’ ঢাকাসহ সারা দেশে মুক্তি পাচ্ছে আগামী ৭ নভেম্বর শুক্রবার। কিন্তু গত ৩০ অক্টোবর পরীক্ষামূলকভাবে ভোলার একটি প্রেক্ষাগৃহে ছবিটির মুক্তি দেয় কর্তৃপক্ষ। ভীড় সামলাতে কর্তৃপক্ষ অগ্রীম টিকেট বিক্রিরও ব্যবস্থা নিয়েছেন।
হল কর্তৃপক্ষ প্রতিদিন ৪টি করে শো চালিয়েও দর্শকদের চাহিদা পূরণ করতে পারছেন না।
ছবি দেখতে আসা জাকির নামের এক দর্শক বলেন, ছবিটি ভালোই করেছে, ভালোই লাগছে, আমিও দেখেছি আপনেরাও দেখবেন। রবিউল নামের অপর দর্শক বলেন, মিলন, বাপ্পি ও মাহির অভিনয় ভালো লাগছে। আমি দুই বার দেখছি। আরো দেখবো।
সদর উপজেলার আলীনগর ইউনিয়নের মোস্তফা কামাল নগর গ্রামের মোঃ মিছির আলী বলেন, অনেক সাধের ময়না ছবিটি ভোলায় ঝড় তুলেছে, আলোড়ন সৃষ্টি করেছে। ভোলার দৃশ্মগুলি মানুষের ভালো লেগেছে। ভোলায় যদি আরো ছবি চিত্রায়িত হয়, তাহলে আরো ভালো হবে।
এদিকে ভোলার সুদৃশ্ম মনোমুগ্ধকর স্পটগুলোতে এই প্রথম বারের মত পূর্ণদৈর্ঘ্য এবটি ছবির পুরো শুটিং হয়েছে। যে কারণে ছবিটি মুক্তি পাওয়ার আগ থেকেই ভোলার মানুষের মুখে মুখে উচ্চারিত হচ্ছিল ছবিটির নাম। রুপালী পর্দার ত্রিভূজ প্রেমের কাহিনী ডিজিটাল পর্দায় দেখার পাশা-পাশি ভোলার সুদৃশ্ম্য স্পটগুলো দেখার জন্য মানুষের আগ্রহ অনেকটা বেড়ে গেছে।
এ ব্যাপারে ভোলার রুপসী সিনেমা হলের ম্যানেজার মোঃ রমজান এর সাথে কথা হলে তিনি বলেন, আমরা টিকেট দিয়ে শেষ করতে পারছি না। তাই অগ্রীম টিকেট বিক্রি করছি। লালমোহন, চরফ্যাশন থেকেও মানুষ অগ্রীম টিকেট কিনে ছবিটি দেখছে।
জাজ মাল্টিমিডিয়া কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, এ সপ্তাহে শুধুমাত্র রুপসী সিনেমা হলে ছবিটি চলবে। আগামী সপ্তাহে ঢাকার সাথে চরফ্যাশন, বোরহানউদ্দিনসহ ভোলার আরো ৪টি প্রেক্ষাগৃহে ছবিটি মুক্তি পাবে।

পাঠকের মন্তব্য


মন্তব্য প্রদান করতে লগইন করুন। আমাদের সাইটে আপনার একাউন্ট না থাকলে এখানে নিবন্ধন করুন।

পাতার শুরুতে