ডিভোর্সে ক্ষুব্ধ হয়ে

,

ডিভোর্স দেয়ার অপরাধে হেলেন কিলার বিউটি (৪০)নামে এক গৃহবধুকে চাপাতি দিয়ে কুপিয়ে জখম করেছে সদ্য ডিভোর্সী স্বামী টুকু সিকদার। আহতকে আশংকাজনক অবস্থায় স্থানীয়রা উদ্ধার করে বরিশাল শেরেবাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেছে। পটুয়াখালীর কলাপাড়ার লতাচাপলী ইউনিয়নের আলীপুর বাজারে শনিবার দুপুরে এ ঘটনা ঘটেছে।
জানা যায়, স্বামীর নির্যাতন সইতে না পেরে ছয়মাস আগে আসমা বেগম তার স্বামী টুকুকে তালাক দিয়ে বিএনপি নেত্রী হেলেন কিলার বিউটির বাড়িতে আশ্রয় নেয়। এ ঘটনায় ৰিপ্ত হয়ে টুকু বিউটির উপর হামলা চালায়। এতে তার বাম হাত ও ডান পায়ের হাটুতে জখম হয়।
আহত লতাচালী ইউনিয়ন বিএনপির সাবেক নেত্রী হেলেন কিলার বিউটি জানায়, টুকু একজন সন্ত্রাসী ও মদ্যপায়ী। প্রতিরাতে স্ত্রীকে সে মারধর করতো। আসমা স্বামীর অত্যাচার সইতে না পেরে টুকুকে তালাক দিয়ে তার বাড়িতে আশ্রয় নেয়। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে টুকু তার উপর হামলা করে।
তবে টুকুর দাবি, তার স্ত্রী আসমা বেগমকে কু-পরামর্শ দেয়ায় তাকে ডিভোর্স দিয়ে বিউটির বাসায় অবস্থান করতে থাকে। ওই বাসায় অসামাজিক কর্মকান্ড চলে আসছে বলেও টুকুর দাবি। প্রতিবন্ধী একমাত্র ছেলেসহ সংসার ভাঙ্গার জন্য বিউটিকে দায়ী করে ক্ষিপ্ত হয়ে টুকু এমন সশস্ত্র হামলা চালায়।
কুয়াকাটা নৌ-পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই সঞ্জয় কুমার মন্ডল ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানান, ঘটনার পর থেকেই অপরাধীকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।
কলাপাড়া থানার ওসি আজিজুর রহমান জানান, অপরাধীকে আটকের জন্য পুলিশকে নির্দেশ দেয়া হয়েছে। এ রিপোর্ট লেখাপর্যন্ত এ ঘটনায় থানায় মামলা হয়নি।

পাঠকের মন্তব্য


মন্তব্য প্রদান করতে লগইন করুন। আমাদের সাইটে আপনার একাউন্ট না থাকলে এখানে নিবন্ধন করুন।

পাতার শুরুতে