ঈদ মুবারক

টিসিবি : ডিলারশিপ বাতিল করলেন ২৫ জন

,

ষ্টাফ রির্পোটার, ৫ ডিসেম্বর।। টিসিবি’র পণ্যের মূল্যবৃদ্ধির কারণে অনেক ডিলার তাদের জামানত ফিরিয়ে এনে ডিলারশিপ বাতিল করে দিয়েছে। ফলে ভেস্তে যেতে বসেছে সরকারে ন্যায্য মূল্যে পণ্য বিক্রির কার্যক্রম। সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, গত রমজানে বরিশালে টিসিবি’র মাধ্যমে ৪টি পণ্য বিক্রি করা শুরু হয়। ওই সময় সাধারণ বাজারের তুলনায় টিসিবি’র পণ্যের মূল্য কিছুটা কম হলেও প্রচার প্রচারনা না থাকায় অনেকেই বিষয়টি জানতো না। ফলে ওই সময় টিসিবি’র পন্য বিক্রি করা হলেও ডিলারদের লোকসান গুনতে হয়েছে। এজন্য অনেক ডিলারই মালামাল তোলেনি। পরবর্তীতে ঈদ-উল-আযহা উপলক্ষে আবারও ৩টি পণ্য টিসিবি’র মাধ্যমে বিক্রিয়ের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। পণ্যগুলো হলো চিনি, তেল ও মসুর ডাল। এসময় নগরীতে ৭৮ জন ডিলার এবং নগরীর বাইরে জেলায় ৭৪ জন ডিলারকে নিয়োগ দেয়া হয়। কিন’ ওই সময় সাধারণ বাজারের তুলনায় টিসিবি’র পন্যের মূল্য ২ থেকে ১০ টাকা পর্যন্ত বেশী হওয়ায় ডিলাররা মালামাল তোলা থেকে বিরত থাকে। তারা পণ্যের মূল্য কমানোর দাবিতে মানববন্ধন, বিক্ষোভ মিছিলসহ সিটি মেয়র ও জেলা প্রশাসককে স্মারকলিপি পর্যন্ত প্রদান করে। কিন্তু এরপরও দাম না কমায় ডিলাররা আর মালামাল তুলতে পারেনি। সমপ্রতি বরিশাল নগরীর ২৫ জন ডিলার তাদের জামানতের ২৫ হাজার টাকা করে উত্তোলন করে নিয়ে গেছে। তারা জানান, অব্যাহত লোকসানের মুখে না থেকে এই ব্যবসা বন্ধ করে দেয়া ভাল। টিসিবি’র বরিশালের বিভাগীয় প্রধান মোঃ নজরুল ইসলাম সাংবাদিকদের জানান, যারা টাকা ফেরত নিচ্ছে তারা কেউই পেশাদার ব্যবসায়ী নয়। যে উদ্দেশ্যে তারা ডিলারশীপ গ্রহণ করেছিল তা পূরণ না হওয়ায় জামানত ফিরিয়ে নিচ্ছে।

পাঠকের মন্তব্য


মন্তব্য প্রদান করতে লগইন করুন। আমাদের সাইটে আপনার একাউন্ট না থাকলে এখানে নিবন্ধন করুন।

পাতার শুরুতে