ঈদ মুবারক

ভোলায় বোমা উদ্ধার : মাদ্রাসা ছাত্র আটক

,

ভোলা সংবাদদাতা, ২৬ জুলাই।। ভোলার বাপ্তা বুড়ি সমজিদ সংলগ্ন একটি দোকানের পাশ থেকে সোমবার একটি শপিং ব্যাগে ৫টি তাজা বোমা (ককটেল) পাওয়া গিয়েছে। পুকুরে ফেলা দেওয়া ব্যাগ ভর্তি ওই বোমাগুলোর মধ্যে পুলিশ ৪টি উদ্ধার করে। বোমা তৈরির সন্দেহে ঘটনাস্থলের পাশের বাড়ির অষ্টম শ্রেণীর এক মাদ্রাসার ছাত্রকে পুলিশ গ্রেফতার করেছে। ওই বাড়ি তল্লাশি চালিয়ে ইসলামী বই, ডায়েরি, একটি খেলনা পিস্তল, বোমা তৈরির বিভিন্ন উপকরণের আলামত উদ্ধার করা হয়েছে। পুলিশ জঙ্গি কানেকশন তলিয়ে দেখতে কয়েকটি মাদ্রাসা ও বাড়িতে অভিযান চালায়। উদ্ধার করা বোমাগুলো ছিল জর্দ্দার কৌটার ভিতরে বিষ্ফোরক পাউডার, কাচের গুরা, মার্বেল পাথরে ভরা। লাল কসটেপ দিয়ে সম্পূর্ণ পেচানো।
পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, বুড়ির মসজিদের কাছে রিপনের মুদি দোকান। ওই দোকানের চালের নিচে শপিং ব্যাগে ধানের কুড়ার মধ্যে ৫টি কসটেপ পেচানো বোমা ছিল। দোকানদার রিপন জানান, বেলা সাড়ে ১১টার সময় ওই ব্যাগে ভরা বোমাগুলো দেখে আশপাশের লোকজনকে ডেকে ব্যাগে ভরা অবস্থায়ই বোমাগুলো পুকুরে ফেলে দেয়া হয়। খবর পেয়ে সহকারী পুলিশ সুপার আব্দুস সালাম, ডিবি ওসি সাইফুল ইসলামসহ পুলিশের দু’টি টিম ঘটনাস্থল ঘিরে ফেলে পুকুরে তল্লাশি চালিয়ে ৪টি বোমা উদ্ধার করে। জাল ফেলেও ১টি তলিয়ে যাওয়ার কারনে উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি। সহকারী পুলিশ সুপার জানান, উদ্ধার করা বোমাগুলোর মধ্যে একটি ভেঙ্গে বিষ্ফোরকসহ ধ্বংসাত্মক উপাদান দেখে বোমা বলে নিশ্চিত হওয়া গেছে। দোকানদার রিপন পুলিশকে জানায়, একদিন আগে মাদ্রাসার ছাত্র দিদার বোমা মেরে তার দোকান উড়িয়ে দেয়ার হুমকি দিয়েছিল। ওই সূত্র ধরে পুলিশ দিদারের বাড়িতে অভিযান চালায় এবং তাকে গ্রেফতার করে।

পাঠকের মন্তব্য


মন্তব্য প্রদান করতে লগইন করুন। আমাদের সাইটে আপনার একাউন্ট না থাকলে এখানে নিবন্ধন করুন।

পাতার শুরুতে